১ কোটি কার্ড দেওয়ায় দ্রব্যমূল্য কমেছে: তথ্যমন্ত্রী - Purbakantho

শিরোনামঃ

সোমবার, ২৮ মার্চ, ২০২২

১ কোটি কার্ড দেওয়ায় দ্রব্যমূল্য কমেছে: তথ্যমন্ত্রী

তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী হাছান মাহমুদ বলেছেন, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় দেশে ১ কোটি পরিবারকে বিশেষ কার্ড দেওয়ার পর বাজারে জিনিসপত্রের দাম কমেছে।

আজ সোমবার জাতীয় সংসদে পয়েন্ট অব অর্ডারে দ্রব্যমূল্য নিয়ে বিরোধী দলের সদস্যদের সমালোচনার জবাবে তথ্যমন্ত্রী এ কথা বলেন। এর আগে দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি নিয়ে সমালোচনা করে সংসদে বক্তব্য দেন জাতীয় পার্টির সাংসদ মুজিবুল হক ও বিএনপির সাংসদ হারুনুর রশীদ।

এ সময় মুজিবুল হক বলেন, ‘বাজারে গেলে মনে হয় না, সরকার আছে।’ তাঁর বক্তব্যের জবাবে হাছান মাহমুদ বলেন, ‘আপনি (মুজিবুল) বাজারে যান বলেছেন। আপনি আসলে বাজারে যান না। আমি বাজারে যাই। এই ১ কোটি মানুষকে কার্ড বিতরণের পর অনেক পণ্যের দাম কমে গেছে। তেলের দাম কমেছে প্রতি লিটারে ১০ টাকা। পেঁয়াজের দাম বেড়ে গিয়েছিল, এখন কমে হয়েছে ৩০ টাকা। আপনি এখানে অসত্য ভাষণ দিয়েছেন।’

তথ্যমন্ত্রী বলেন, করোনা এবং ইউক্রেন যুদ্ধের কারণে সারা বিশ্বে খাদ্যপণ্য, ভোগ্যপণ্যের দাম বেড়েছে। ইউরোপে গত কয়েক দশকে খাদ্যমূল্য সর্বোচ্চ পর্যায়ে গেছে। রুটির দাম ৮০ শতাংশ বেড়েছে। বাংলাদেশেও কিছু কিছু খাদ্যপণ্যের দাম বেড়েছে। এরপর প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় ১ কোটি পরিবারকে কার্ড দেওয়া হয়েছে। সেই কার্ডের ভিত্তিতে প্রতি পরিবারে ৫ জন করে ৫ কোটি মানুষের কাছে স্বল্পমূল্যে খাদ্যসামগ্রী বিক্রি করা হচ্ছে। `এতে খাদ্যপণ্যের দাম অনেক কমে গেছে।'

তথ্যমন্ত্রী আরও বলেন, জিয়াউর রহমান শত শত মানুষকে, সেনাবাহিনীর অফিসার-জওয়ানদের বিনা বিচারে ফাঁসিতে ঝুলিয়েছেন। তারেক রহমানের নেতৃত্বে, খালেদা জিয়ার জ্ঞাতসারে ২১ আগস্টে গ্রেনেড হামলা হয়েছে। জিয়াউর রহমান আইন করে বঙ্গবন্ধু হত্যা ও জাতীয় চার নেতা হত্যাকাণ্ডের বিচার বন্ধ করেছিলেন। বিএনপির মুখে আইনের শাসনের কথা মানায় না। যারা রাজনীতির জন্য মানুষ পুড়িয়ে হত্যা করে, ঘুমন্ত মানুষের ওপর পেট্রল বোমা নিক্ষেপ করে হত্যা করে, `তারা আইনের শাসনের কথা বলার অধিকার রাখে না।'

from প্রথম আলো ।

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন