শিরোনাম :

10/trending/recent

Hot Widget

অনুসন্ধান ফলাফল পেতে এখানে টাইপ করুন !

ডারবান টেস্ট: আইসিসির কাছে বিচার চাইবে বাংলাদেশ

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ডারবান টেস্টের আম্পায়ারিং নিয়ে প্রকাশ্যেই প্রশ্ন তুলেছে বাংলাদেশ। পাশাপাশি মাঠে দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটারদের অতীমাত্রার স্লেজিং নিয়ে রীতিমতো হতভম্ব টাইগাররা। ম্যাচ শেষে বাংলাদেশ অধিনায়ক মুমিনুল হক দাবি করেছেন, দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটাররা রীতিমতো গালাগাল করেছেন। এসব বিষয় নিয়ে আইসিসি বরাবর আনুষ্ঠানিক অভিযোগ করার প্রস্তুতি নিচ্ছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। দ্বিতীয় ইনিংসে মাত্র ৫৩ রানে গুটিয়ে গিয়ে ২২০ রানে হেরে যাওয়া ম্যাচে প্রথম চার দিন দক্ষিণ আফ্রিকার চোখে চোখ রেখে লড়েছে বাংলাদেশ। ম্যাচে বেশ কিছু ক্লোজ সিদ্ধান্ত গেছে বাংলাদেশের বিপক্ষে। বারবার রিভিউ নিতে হয়েছে বাংলাদেশকে। ম্যাচ চলাকালেই বিষয়টি নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন পারিবারিক কারণে এই ম্যাচে না খেলা সাকিব আল হাসান। দলের ম্যানেজার খালেদ মাহমুদ সুজন ও অধিনায়ক মুমিনুল হক সৌরভও প্রশ্ন তুলেছেন আম্পায়ারিং নিয়ে। ম্যাচের চতুর্থ দিন শেষে আম্পায়াদরদের সঙ্গে কথা বলতে দেখা যায় তামিম ইকবালকে। পেটের পীড়ায় এই ম্যাচ খেলতে না পাড়া তামিম মাঠে দক্ষিণ আফ্রিকানদের গালিগালাজ নিয়েই আম্পায়ারদের সঙ্গে কথা বলেছিলেন বলে জানা যায়। এসব বিষয় মানতে নারাজ নয় বাংলাদেশ। বিসিবির ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটির প্রধান জালাল ইউনুস ক্রিকইনফোকে জানান বলেন, ‘ওয়ানডে সিরিজ শেষে আম্পায়ারিং নিয়ে ইতোমধ্যে আমরা অভিযোগ দায়ের করেছি। আমাদের ম্যানেজার নাফীস ইকবালের সঙ্গে শুরুর দিকে বাজে আচরণ করেছিল ম্যাচ রেফারি কিন্তু যখন আমরা লিখিত অভিযোগ দিয়েছিলাম তখন সে নরম হয়েছিল। এ

বার এই টেস্ট ম্যাচ নিয়ে আরেকটি অফিসিয়াল অভিযোগ দিব।’ তিনি বলেন, ‘তারা জয়কে (মাহমুদুল হাসান) ঘিরে ধরেছিল যখন সে ব্যাট করতে নেমেছিল। তারা কিছু একটা বলছিল। সে পাল্টা জবাব দিতে পারেনি, কারণ সে জুনিয়র খেলোয়াড়। এটা ছিল দুঃখজনক। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ না করে আম্পায়াররা আমাদের খেলোয়াড়দের সাবধান করে দিচ্ছিল, যখন আমরা স্লেজিং নিয়ে অভিযোগ করছিলাম। দুই দেই স্লেজিং করেছিল। কিন্তু তারা যখন করছিল সেটা ছিল সীমাছাড়া। আমরা আম্পায়ারদের কাছে অভিযোগ করেছিলাম। এটা অগ্রহণযোগ্য। আমরা তীব্র নিন্দা জানাই। 

আম্পায়ারদের সিদ্ধান্ত আমাদের মেনে নিতে হবে, কিন্তু আইসিসির উচিত নিরপেক্ষ আম্পায়ার ফেরানো।’ ডারবান টেস্ট শেষে বাংলাদেশ অধিনায়ক মুমিনুল হক সৌরভ বলেন, ‘ক্রিকেট মাঠে স্লেজিং সব সময় হয়। `স্লেজিং হবে, এটাই স্বাভাবিক।' কিন্তু স্লেজিং যখন গালাগালির পর্যায়ে চলে যায়, এটা খুব খারাপ। আমার মনে হয়েছে, মাঝেমধ্যে ওরা গালাগালি করছিল, খুব বাজেভাবে। যেটা আম্পায়ার ওইভাবে খেয়াল করেননি।’

from Sarabangla | Breaking News | Sports | Entertainment https://ift.tt/0e6V2vt

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ
* Please Don't Spam Here. All the Comments are Reviewed by Admin.

Top Post Ad

Below Post Ad